Breaking News

দৃষ্টিশক্তি নেই বলেই কি পৃথিবীর রুপ রস রঙ থেকে বঞ্চিত হবেন ? না সেই দিন শেষ এখন। সৌগম পুস্তকালয় আছে সবার জন্য

“অন্ধ জনে দেহ আলো”
আমরা যারা চোখে দেখতে পাই তারা খুবই ভাগ্যবান। ঈশ্বর আমাদের এই পৃথিবীর সকল সৌন্দর্য উপভোগ করে চক্ষের তৃষ্ণা মেটানোর সুযোগ করে দিয়েছেন। এই চোখের জন্যেই আমরা প্রাণ ভরে সাহিত্য রস ও কাব্য রসকে উপভোগ করতে পারি। কিন্তু যাদের দৃষ্টি শক্তি তেমন নেই, সে জন্মগত কারণেই হোক বা দুর্ঘটনা র জন্য ..তারা? তারা পড়বেন না , তারা সাহিত্য রস উপভোগ করবেন না? তারা প্রযুক্তির মাধ্যমের সুযোগ পাবেন না ?

হ্যাঁ করবেন হাজার বার….ছাপা অক্ষরে লেখা পড়তে যাঁদের সমস্যা হয়, তাঁদের মন খারাপের দিন এবার শেষ। The Ministry of Social Justice and Empowerment থেকে “সৌগম্য পুস্তকালয়” নামের একটি অনলাইন লাইব্রেরী তৈরি করা হচ্ছে। দৃষ্টিশক্তিজনিত অসুবিধা আছে এমন ব্যক্তিরা সহজেই এই অনলাইন লাইব্রেরীর বিভিন্ন সুলভ পুস্তক বিন্যাসের বই পড়তে পারবেন। নানান ভাষাভাষির প্রায় দু লাখ বই আছে এই লাইব্রেরীতে। Daisy Forum of India (DFI)-এর সদস্যদের হাত ধরে the Ministry of Social Justice and Empowerment-এর তরফ থেকে এটি নির্মাণ করা হয়েছে।

TCS Access-ও এঁদের সঙ্গে যুক্ত। Daisy Forum-এর দৃষ্টিশক্তি সংক্রান্ত সমস্যায় ভুগছেন এমন সদস্যরা এখানে নিজেদের নাম নথিভুক্ত করতে পারবেন। মোবাইল, কম্পিউটার, ল্যাপটপ, ট্যাবলেট এমন সবরকমের ডিভাইস থেকেই পড়া যাবে এই লাইব্রেরীর বই। DAISY প্লেয়াররা এমনকি Braille ব্যবহারকারীরাও এখানে বই পড়তে পারবেন। ছাপার অক্ষর পড়ার সমস্যা আছে যাঁদের তাঁরা মেম্বার অরগাইজেশানগুলোর মারফত Braille কপির জন্য অনুরোধ করতে পারবেন। আগ্রহী স্কুল, বিশ্ববিদ্যালয়, পাবলিক লাইব্রেরী, NGO, প্রকাশক, কর্পোরেট সংস্থা এরা সকলে এই লাইব্রেরীর গ্রন্থ সংখ্যা এবং আয়তন বাড়ানোর কাজে অংশগ্রহণ করতে পারবেন। IT ইন্ডাস্ট্রির মানুষজন অনলাইন লাইব্রেরীর প্রযুক্তিগত উন্নতি আর ভারতীয় প্রাদেশিক ভাষায় ডিজিটাল কনটেন্ট পড়ার বিষয়ে সহায়তা করবেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *