Breaking News

জেনে নিন অন্তরালে থাকা এক বিশ্ব বরণ্যে ডাক্তারের কাহিনী

ভারতে বছরে ৭৮০০০ শিশু রোটা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে মারা যায়। ৫বছর বয়সের মধ‍্যেকার শিশুদের মধ্যে ডাইরিয়া হয়ে মৃত্যুর হার বেশী। ডাঃ মহারাজ কিষণ ভান ছিলেন এমন একজন শিশু রোগ ও স্বাস্থ্য বিশেষজ্ঞ যিনি এই রোটা ভাইরাসের জন‍্য একটি ৩ডোজের প্রতিষেধক আবিষ্কার করেছিলেন যার বাজার মূল্য হল মাত্র ১৮০টাকা।
বাজারে হু-এর অনুমোদন করা যে প্রতিষেধকগুলো পাওয়া যায় তার এক একটি কোর্সের মূল্য প্রায় ২৫০০ টাকা। ভারতবর্ষের মত দেশ যেখানে আর্থিক ভাবে স্বচ্ছল পরিবারের সংখ্যা যথেষ্টই কম ,সেখানে ২৫০০ টাকায় প্রতিষেধক কেনার ক্ষমতা অনেকেরই নেই। ফলে বহু সদ‍্যজাত এবং শিশুর অকালে মৃত্যু ঘটতো।
ডাঃ ভান সরকারি,বেসরকারি এবং কিছু আন্তর্জাতিক সংস্থার সাথে মিলে প্রথম রোটাভ‍্যাক নামের এই স্বল্পমূল্যের প্রতিষেধক আবিষ্কার করেন এবং ২০১৪ সালে সেই প্রতিষেধক ভারতে ব‍্যাবহারের লাইসেন্স দেয় ভারত সরকার। এটি ভারতের প্রথম ভ‍্যাক্সিন যা সম্পূর্ণটাই ভারতে তৈরী হয়েছে এবং ভারত সরকার ২০১৬-র সেপ্টেম্বরে এই ভ‍্যাক্সিন টি কে ভারতের ৪টি রাজ‍্যে ব‍্যাবহারের অনুমতি দেন।
১৯৮৫ সাল থেকে প্রায় ৩৫ বছরের দীর্ঘ প্রচেষ্টায় ডাঃ ভান সফল হন এই প্রতিষেধক আবিষ্কারে।
কিন্তু দুঃখের বিষয় এ ই যে ২০২০ সালের জানুয়ারি মাসে এই স্বনামধন্য ডাক্তার ক‍্যান্সারে আক্রান্ত হয়ে ইহলোক ত‍্যাগ করেন। তার মৃত্যুতে হু এর থেকে শোক প্রকাশ করে জানানো হয়েছে উনি এমন একজন মানুষ ছিলেন যিনি ভারতকে তথা বিশ্বকে এমন এক প্রতিষেধক প্রদান করে গেছেন যা অনস্বীকার্য।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *